logo

আখেরি মোনাজাত চলছে


আখেরি মোনাজাত চলছে

শান্তি ও কল্যাণ কামনায় বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বের আখেরি মোনাজাত শুরু হয়েছে।

 

রোববার সকাল সোয়া ১০টার পর মোনাজাত শুরু হয়। রাজধানীর কাকরাইল মসজিদের ইমাম হাফেজ মোহাম্মদ জোবায়ের আখেরি মোনাজাত পরিচালনা করছেন।

 

আজ সকালে মাওলানা আব্দুল মতিনের বয়ানের মধ্য দিয়ে শুরু হয় তৃতীয় দিনের কার্যক্রম। ইবাদাত বন্দেগি, জিকির আর কোরআন হাদিসের আলোকে বয়ানের মধ্য দিয়ে দ্বিতীয় পর্বে অংশ নেওয়া তাবলিগ জামাতের সমবেত মুসল্লিরা দ্বিতীয় দিন অতিবাহিত করেন। 

 

ইজতেমাস্থলে তাবলিগ জামাতের সমবেত দেশি-বিদেশি মুসল্লিদের পাশাপাশি ঢাকা, গাজীপুর ও আশপাশের জেলার কয়েক লাখ মুসল্লি বরাবরের মতো এ আখেরি মোনাজাতে শরিক হন। গত দুই দিনের মতো আজ টঙ্গীর আবহাওয়া রয়েছে অনুকুলে। শীতের তীব্রতাও প্রথম পর্বের চেয়ে তুলনামূলক কম। ফলে দ্বিতীয় পর্বে মুসল্লিদের উপস্থিতি তুলনামূলকভাবে বেশি লক্ষ্য করা গেছে।

 

দ্বিতীয় পর্বের আখেরি মোনাজাত উপলক্ষে বিশ্ব ইজতেমা ময়দান ও তৎসংলগ্ন এলাকায় কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা ও ময়দানসংলগ্ন সড়ক-মহাসড়কে যানবাহন চলাচল নিয়ন্ত্রণ করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষকারী বাহিনী। মুসল্লিদের সুবিধার্থে শনিবার দিবাগত রাত ১২ টার পর থেকে ইজতেমা মাঠসংলগ্ন ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের ঢাকার আব্দুলাহপুর থেকে গাজীপুর সিটি করপোরেশনের ভোগড়া বাইপাস, আশুলিয়া সড়কের কামাড়পাড়া এবং টঙ্গী-নরসিংদী সড়কের গাজীপুর সিটি করপোরেশনের মীরেরবাজ পর্যন্ত টঙ্গীমুখী যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়। ফলে আখেরি মোনাজাতে শরিক হতে ভোর থেকেই মুসল্লিরা ওইসব সড়ক দিয়ে হেটে ইজতেমাস্থলের দিকে আসেন। এ ছাড়া গাজীপুর জেলা পুলিশ ভোগড়া বাইপাস ও মীরেরবাজার থেকে ইজতেমাস্থল পর্যন্ত আখেরি মোনাজাতের আগে ও পরে মুসল্লিদের আনা নেয়ার জন্য ১৫টি বাস দিয়েছে।

 

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার বাদ ফজর বাংলাদেশের মাওলানা ফারুক হোসেনের বয়ানের মধ্য দিয়ে শুরু হয় ইজতেমার দ্বিতীয় পর্ব। এর আগে একই ময়দানে গত ১২ জানুয়ারি শুরু হয়েছিল বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব। প্রথম পর্বে ঢাকার একাংশসহ ১৪ জেলার মুল্লিরা অংশ নেন। ১৪ জানুয়ারি আখেরি মোনাজাতের মধ্যে দিয়ে শেষ হয়েছিল প্রথম পর্ব। আজ আখেরি মোনাজাতের মধ্য শেষ হবে ৫৩তম বিশ্ব ইজতেমা ।

মন্তব্য

উপর