logo
Floating 2
Floating
শিরোনাম

মুসলিম অভিবাসীদের দায়ী করায় অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ডের সিনেটর ফ্রেজার অ্যানিংকে ডিম ছুঁড়লো তরুণ (ভিডিও)


 মুসলিম অভিবাসীদের দায়ী করায় অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ডের সিনেটর ফ্রেজার অ্যানিংকে ডিম ছুঁড়লো তরুণ (ভিডিও)

নিউজিল্যান্ডে মসজিদে হামলার পর  সারাবিশ্বে যখন শোক প্রকাশ ও নিন্দা জ্ঞাপন চলছে  তখন আল নূর মসজিদে হামলার জন্য অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডে ক্রমবর্ধমান মুসলিম অভিবাসীদের দায়ী করেন অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ডের সিনেটর ফ্রেজার অ্যানিং।

 আর এমন মন্তব্যের পর সমালোচনার ঝড় ওঠে দেশ বিদেশে। অস্ট্রেলিয়ান প্রধানমন্ত্রীও ফ্রেজারের কঠোর সমালোচনা করেন।

বক্তব্য দেয়ার একদিন পর মেলবোর্নে একটি সংবাদ সম্মেলনে সিনেটর ফ্রেজারকে ডিম ছুঁড়েন ১৭ বছর বয়সী এক তরুণ। এই তরুণ মূলত একজন স্বাধিকার আন্দোলনকারী। তরুণের ডিম ছোঁড়ার সঙ্গে সঙ্গেই ঘটনাস্থল একটি 'রণক্ষেত্রে' পরিণত হয়। সিনেটর ফ্রেজার ওই তরুণকে প্রথমে মাথায় চপেটাঘাত করেন। দ্বিতীয়বার তিনি আবারো ঐ আন্দোলনকারীকে মারতে যান। এসময় উপস্থিত সাংবাদিক এবং অন্যান্যরা তাকে আটকাতে যান। কিন্তু এরপরেও সিনেটর ফেজার ঐ যুবককে লাথি মারতে যান।  
 
ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে হামলায় ৪৯ জন নিহতের ঘটনার পর ফ্রেজার বিভিন্ন  প্রকাশিত বক্তব্যে বলেন, 'নিউজিল্যান্ডে এই রক্তপাতের পেছনে প্রকৃতপক্ষে দায়ী হচ্ছে অভিবাসন পদ্ধতি যা মুসলিম চরমপন্থীদের নিউজিল্যান্ডে অভিবাসনের সুযোগ দিচ্ছে।'



এছাড়াও তিনি মুসলিম সম্প্রদায়কে সামগ্রিকভাবে হেয় করতে ছাড়েননি। তিনি বলেন, আজকে তারা হামলার শিকার, কিন্তু তারা সাধারণত অপরাধী।

তার এমন বক্তব্যে ফুঁসে ওঠে অস্ট্রেলিয়াসহ সারাবিশ্বের অসাম্প্রদায়িক মুক্তমনের মানুষেরা।

সাংবাদিক ক্রিস্টি মায়ার তার টুইটার হ্যান্ডেলে সিনেটরের সংবাদ সম্মেলনে ডিম ছোঁড়ার বিষয়টি তুলে ধরে লিখেন, একটি কিশোর কনফারেন্সের মাঝেই বিতর্কিত সিনেটর ফ্রেজার অ্যানিংকে ডিম ছুঁড়ে মারে। সিনেটর ও পাল্টা জবাবে ছেলেটির মাথায় আঘাত করে এবং ছেলেটিকে মাটিতে ফেলে দেয়া হয় এবং পুলিশ আসার আগ পর্যন্ত তাকে ঐভাবেই রাখা হয়।

সেভেন নিউজ সিডনির বরাতে জানা যায়, ডিম ছুঁড়ে মারা তরুণের বয়স ১৭। মেলবোর্নের মোরাব্বিনে তার ওপর এই হামলা চালানো হয়। তবে জিজ্ঞাসাবাদের পর ওই তরুণকে ছেড়ে দেয়া হয়।


দৈনিক প্রজন্ম ডটকম /  জা.আ

মন্তব্য

উপর