logo
Floating 2
Floating

জামালপুরে রাম দা উচিয়ে জমি জবর দখলে’র চেষ্টা যুবলীগ নেতা’র


জামালপুরে রাম দা উচিয়ে জমি জবর দখলে’র চেষ্টা যুবলীগ নেতা’র

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে রাম দা উচিয়ে যুবলীগ নেতা জমি জবর দখলের চেষ্টা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার বিকেলে উপজেলার মাজালিয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে। সন্ত্রাসী কামালের ভয়ে এলাকা ছাড়া হয়েছে জমির মালিকরা।

স্থানীয় ও ভুক্তভোগী পরিবার সুত্রে জানা গেছে-সরিষাবাড়ী উপজেলার মাজালিয়া বিলপাড়া গ্রামের মৃত আব্দুর রহমানের নিকট থেকে ১৯৫৩ সালে হাসড়া মাজালিয়া মৌজার ৬১ শতাংশ জমি সাফ কওলা নিয়ে মৃত মনিরুদ্দিনের ছেলে মৃত মোজাফ্ফর মৃত জৈন শেখ মালিকানায় ভোগ দখল করে আসছিল।উক্ত জমিতে বসতবাড়ী,পুকুর,কবরস্থান,ফলজ ও বনজ বৃক্ষ বিদ্যামান রয়েছে।একই গ্রামের মৃত আব্দুর রহমানের ছেলে আয়নাল হক,নাতিন মজনু মিয়া তাদের বাপ দাদার জমি দাবী করে বিভিন্ন সময়ে নানা হুমকি ধামকি দিয়ে আসছিল।এ জমি জমা নিয়ে কয়েক দফায় গ্রাম্য সালীশের পর্যালোচনা অনুযায়ী মৃত মোজাফ্ফরের ছেলে সাইফুল ইসলাম,আব্দুল কাদের,তোষর আলী,শফিকুল ইসলাম ও মৃত জৈন শেখ এর ছেলে চান মিয়া,আলতাব হোসেন,তোতা মিয়া ও লাল চান মিয়া প্রকৃত ভূমি মালিক হিসেবে দরবারের সিদ্ধান্তে উপনিত হন।ওই গ্রাম্য সালীশের সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে মৃত আব্দুর রহমানের ছেলে আয়নাল হক,নাতিন মজনু মিয়ার পক্ষে ডোয়াইল ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক কামাল হোসেন ও তার ভাই মিনহাজ আহম্মেদ বকস’র নেতৃত্বে মজিবর রহমান,হবিবর রহমান,আব্দুল মান্নান,ফারুক হোসেন,জয়নাল আবেদীন,ফরিদ হোসেন,আলী আকবর,সহ ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসীরা দেশীয় অস্ত্রের সজ্জিত হয়ে রাম-দা ও লঠিশোঠা নিয়ে সংঘটিত হয়ে গরু ব্যাবসায়ী তোষর আলীর বসত ঘরে ডুকে ৫ লাখ টাকা লুট করে নিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা।এ সময় স্থানীয় গাছ কাটার করাতি সুজা মিয়া,আব্দুল খালেক কে দিয়ে প্রকৃত ভূমি মালিকদের লাগানো প্রায় অর্ধ শতাধিক ফলজ ও বনজ বৃক্ষ কর্তন করে নিয়ে যায়।এ ছাড়াও বাড়ীর অঙ্গীনায় থাকা শতাধিক কলা গাছ ও সবজী বাগানের ক্ষতি সাধন এবং জমিতে একটি ছাপরা ঘর উত্তোলন সহ জমি জবর দখলের চেষ্টা করে।এ সময় প্রকৃত ভূমি মালিক আলতাব হোসেন ও তার লোক জন বাধা দিতে গেলে যুবলীগ নেতা কামাল রাম দা উচিয়ে সন্ত্রাাসী কায়দায় তাদের উপর হামলা চালিয়ে মারপিট করে।এতে প্রকৃত ভূমি মালিক আলতাব হোসেন (৪৫) রুবেল(২৪) কাদের(৪৫) তোতা (৩৮) চানমিয়া(৫০) ঝর্ণা(৩২)রওশনারা (৩৮) অনিক (১২),তৌকির(১৪) রিপন(১৩) আহত হয়।গুরুতর আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্্ের ভর্তি করে বাকীদের স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।


জানতে চাইলে ডোয়াইল ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক কামাল হোসেন জানান, আমাকে সহ মজনু(৩৫) মজিবর(৪৮)আলী আকবর(১৯)ময়না(৪৫)কে মারপিট করেছে। অপনারা সঠিক ঘটনা পত্রিকায় লিখুন।

এ ব্যাপারে সরিষাবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ মাজেদুর রহমান বলেন,এ বিষয়টি আমার জানা নাই।ভুক্তভোগী পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ পেলে তদন্ত করে দোষীর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

মন্তব্য

উপর