logo
Floating 2
Floating

সব দাবি মানার পরও বুয়েটে আন্দোলন কেন, প্রশ্ন প্রধানমন্ত্রীর


সব দাবি মানার পরও বুয়েটে আন্দোলন কেন, প্রশ্ন প্রধানমন্ত্রীর

আবরার ফাহাদ হত্যার ঘটনায় বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) শিক্ষার্থীদের দাবি মেনে নেওয়া হয়েছে জানিয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সেই আন্দোলনের যৌক্তিকতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন।

আজ শনিবার রাজধানীর খামারবাড়িতে কৃষিবিদ ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে মহিলা শ্রমিক লীগের জাতীয় সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে দেওয়ার সময় এই মন্তব্য করেন প্রধানমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বুয়েটের সাধারণ শিক্ষার্থীদের ১০ দফা দাবির সবগুলোইতো মেনে নিয়েছেন ভিসি। তারপরও নাকি তারা আন্দোলন করবে। কেন করবে জানি না। এরপর আন্দোলন করার কী যৌক্তিকতা থাকতে পারে?

বুয়েট শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা অন্যায়কারীকে অন্যায়কারী হিসেবে দেখি, অত্যাচারীকে অত্যাচারী হিসেবেই দেখি। কোনও অন্যায় অবিচার সহ্য করিনি, ভবিষ্যতেও করবো না।’

শেখ হাসিনা বলেন, ‘বুয়েটের ঘটনা শোনার পরপরই আমি পুলিশকে পদক্ষেপ নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছি। তবে তারা বুয়েটে ভিডিও ফুটেজ সংগ্রহ করার সময় বাধার মুখে পড়ে। এটা কেন জানি না।’

এর আগে আবরার হত্যার বিচারসহ ১০ দফা দাবি আদায়ে বুয়েটের শিক্ষার্থীরা মঙ্গলবার থেকে আন্দোলন চালিয়ে আসছেন। দাবি পূরণ না হলে ভর্তি পরীক্ষা বন্ধ করে দেওয়ারও ঘোষণা দেন তারা। এর মধ্যে পাঁচটি দাবি অত্যন্ত জরুরি এবং সেগুলো মেনে না নিলে ভর্তি পরীক্ষা বন্ধ করে দেওয়ার ঘোষণা দেন শিক্ষার্থীরা। এরপর গতকাল রাতে বুয়েটে ছাত্র রাজনীতি নিষিদ্ধ এবং আবরার হত্যা মামলার ১৯ আসামিকে সাময়িক বহিষ্কার করার ঘোষণা দেওয়া হয়। পাশাপাশি অন্য দাবিগুলোও পূরণ করার প্রতিশ্রুতি দেন ভিসি।

মন্তব্য

উপর